বিষলিপি

Monsoonletters bilingual poetry anthology issue ‘বিষলিপি’ First Published February 2020 Available at The University Press Limited (UPL). You can purchase your copy of ‘বিষলিপি’ now from UPL books at https://tinyurl.com/ybdj8eo7 Get your copy while stocks last!

নাগরিক রাবণ

নাগরিক প্রাণ আমি প্রকৃতির উদারতায় তাই বদহজম নাগরিক ঘ্রাণ আমি নাগরিক জনে-জালে আটকে জীবন; আমি নগরীর অভিশপ্ত পণ নিঃশ্বাসে যে ঢালে অন্তর্বিষ অনর্গল, অনুশোচনা কেবল – দীর্ঘজীবী হতে থাকে নাগরিক রাবণ।। কী জানি ফাঁকা, এক্কেবারে ফাঁকা লাগছে এগোচ্ছে না কিছুই, না মন না শরীর- নাহ্ কিচ্ছু না বুকটা ঢিবঢিব দিনটা নিবনিব জোঁকের মত সিঁটিয়ে যাচ্ছে …

ফেরা

-মা অপেক্ষায় ছেলে ফিরবে স্যুট-টাই পড়ে বাবুমশাই হয়ে লাল জিপের গাড়ি নিয়ে। -ছেলে ফিরলো সাইরেন বাজিয়ে মস্ত বড় এম্বুলেন্স সাদা কফিন বন্দি লাশ! ছেলের শেষ চিঠি, মা কিভাবে পারলে আমাকে একটা অন্ধকার কসাই খানায় একা ছেড়ে দিতে!

প্যারিস

আমি আজ কি লিখবো ? কি ই বা লিখার আছে বলুনতো ? কে ই বা শুনবে কথা ? আমি তো জেরুজালেমের বিরুদ্ধে বলবো ? আধুনিক এসাইলাম-সিকার গোষ্ঠি আবার তা নিতে পারে না । যারা মানবতার দূত, শালা স্বৈরাচার এরশাদও তো দূতই ! কেবল পার্থক্য- তারা তো ২৩০ ডলার ভাতা পায় ! আমিতো বুর্জোয়াবাদের বিরুদ্ধে বলবো। …

মধ্যবিত্ত ক্রাইসিস

এক বর্ষায় বাবার চাকরি চ’লে যায়। আমি তখন ছয় বছর। আর এইভেবে অবাক হই বাবার মনে আনন্দ নাই! দুর্ভাগ্যের চূড়ায় দাঁড়ানোআমার বোকা বাবা হাসতে ভুলে যান। আর আমার সিরিয়ালপ্রিয় মাহুট করেই সেলাই প্রেমী হ’য়ে ওঠেন। প্রতিবেশীদের সব জামা সেলাইকরতে করতে মা বদলে যান। মায়ের সবগুলো দিন আর সমস্ত প্রিয়রাত ছিনতাই ক’রে নেয় একটি সেলাই মেশিন। …

Hellhound

Brother, I can no longer remember The smell of nicotine drenched sheets And scented candles Trapped within your bedroom walls. I can no longer remember The curl of your grin And the crawling of my skin When you would look at me. My thoughts, They don’t reek of you anymore. Can’t you see? My mind …

শোভাকল

এই ভাত দেখলে ভয় লাগে এখন!এই ভাতের জন্যই কতোবিধ কৌশল! মানুষের ক্ষুধা জীবনেরও উর্ধ্বে,নিশ্বাস এখানে দুই টাকার হলুদ কোন খাম! ভাত যে কি নিদারুণ জরুরি অভিশাপ,বোঝার পরে আর থালার ভেতরআঙুল রাখতে পারিনি, একি কোন পাপ! পেটের দিকে তাকালেই দেখি উচ্ছৃঙ্খল রাক্ষস। রাত্রি নিদে মানুষের সাথে আঁতাতে ক্ষুধা যেঈশ্বর হয়ে উঠছে, এখন প্রকৃত ঈশ্বরের কি হবে! …

বেওয়ারিশ

আমি আমার লাশটা কাঁধে নিয়ে হাঁটছি।এখানে কেউ আমাকে চেনেনা।একজন বাজারের ব্যাগ হাতে এসে কিছুক্ষণ তাকিয়ে থেকে দুঃখ করতে করতে চলে গেলো।আরেকজন হন্তদন্ত হয়ে ছুটে এসে বললো ‘পুলিশে খবর দিন কেউ!’একজন উৎসাহী সুরে বললো ‘বুকে কান পেতে দেখেন তো প্রাণ আছে কিনা।’এই বলতেই আরেকজন বললো ‘আরে এম্বুলেন্স খবর দিন কেউ, হাসপাতালে নিতে হবে’গুলিটা এসে বামদিকে লেগেছিলো, …

নতুন জন্মের কবিতা

তোমার কাছে সূর্যের আলো চলে আসে বাতাস বা জ্যোৎস্না চলে আসে। আসবেই। তুমি শুধু চলো সামনে চলো জন্মের দিকে চলো। কারণ ও দিকেই তোমার সুন্দর হারিয়েছে। হাঁটো আরও দ্রুত হাঁটো ছোটো আরও আরও দ্রুত দৌঁড়াও খাও-দাও বিশ্রাম করো। ভাবো প্রেমে ডুব দাও, ডুবাও ভেসে উঠো, ভাসাও। তারপর আবার চলো জন্মের দিকে চলো সামনের দিকে চলো …

অসাড় অস্তিত্ব

প্রেমিকের জন্য অপেক্ষা কি ভয়াবহ! অপেক্ষমান প্রতিটি মুহূর্ত হয়ে ওঠে এক একটি বছর। প্রেমিক আসার অপেক্ষায় প্রেমিকার সযতনে সরানো প্রতিটি ধূলিকণা হয়ে ওঠে ভালবাসার বসন্ত। প্রেমিকের জন্য অপেক্ষা কি ঐতিহাসিক! নিশ্চিত পরাজয় জেনেও, প্রেমিকা যুদ্ধের ময়দানে অনড়। প্রেমিকের জন্য অপেক্ষা কি মধুর, অপেক্ষার হেমলক পানে প্রেমিকা হয়ে ওঠে স্বর্গের আফ্রোদিতি।