নৃমুণ্ডমালিনী

পরিচয়ে আমি মানুষ- কিন্তু আমি তো জানি- বাবার বাধ্য মেয়ে আমি। যার শিক্ষা গ্রহণের অধিকার আছে, কিন্তু নেই মত প্রকাশের স্বাধীনতা। পরিচয়ে আমি মানুষ বটে। যে অর্ধাঙ্গী, জননী, বোন, প্রেয়সী ভালোবাসার জলে জলে ভরা আমার নদী শুধু নেই ঢেউ, যে ঢেউয়ে ভেসে পাড়ি দিতে পারি পরাধীনতার সমাধি। পরিচয়ে তাই আমি মানুষ নই- আমি নারী। আমার …

হতেও তো পারে

বন্দুকের নলের মাথাগুলো লজেন্সের মোড়কের মত মুচড়ে যেতেও তো পারে । ক্রোধে ভরা পিন্ডে কোন নারী সুখের তুষার বইয়ে শীতল রেফ্রিজেটরও হতে পারে । ৫৭ ধারার মানে বদলে প্রকাশ্যে চুমুর জায়েজিকরণ মলমও তো হতে পারে। বিটিভিতে “অদ্ভুত উটের পিঠে চলেছে স্বদেশ” নামে একদিন আলোচনাও কিন্তু হতে পারে। পুলিশের পোষাক পাল্টে গোলাপ প্রিন্টের সাদা শার্ট আর …

হাড়

১ম যে বলে, “কান্নার কি আছে। কিছুক্ষণ পরেই ভালোলাগবে।” ২য় যে তোমাকে কৃতজ্ঞতা জানায় আর দেখে অবনত চোখে। ৩য় যে তোমার খাবারের দাম দেয়, দেয় বাড়ি পৌছানোর ট্যাক্সি আর তোমার মায়ের ঘর ভাড়া। ৪র্থ যে বলে, “এতো ভালোলাগছিল, বুঝতেই পারিনি কি করে থেমে যেতে হয়।” ৫ম যে বলে শরীর সঁপে দেয়া কঠিন কিন্তু তুমি কি …

Siege

soothe me. run a feather against my skin. conquer me. cut through my veins and invade my blood. lie to me. for all you’ve known is deceit. beseech me. let me watch you weep on your knees, hands tied, head shook. you speak words like that of books. lies and lies, a big mountain of …

যানজট

এই অদ্ভুত শহরের যান-গুলো চলে ভালোবাসাবাসি করে। নব্য প্রেমিক-প্রেমিকার অনাবশ্যক ছোঁয়া-ছুয়ির মতন। মাঝে মাঝে ওরা আঁটকে যায়। যানজটের যান গুলো জেগে থাকে সারি সারি হেড-লাইট জ্বেলে, সহস্র ইঞ্জিনের মৃদু গুঞ্জনে যেন জানিয়ে দেয় অপেক্ষমান অনন্ত কালের জন্য ওদের কিচ্ছুটি করবার যো নেই, নড়বার যো নেই। আমাদের চোখে আলো জেগে ঘুম-জাগা প্রহরের মতন, ওরাও কাঁটায় যান্ত্রিক-জীবন। …

এসো হে প্রিয়া মোর সাজায় প্রেমেরই বাসর

হুরেরা দারায়ে হৃদয়ো দুয়ারে আনিছে সুরের মালা তোমারে পরাবো দুহাতে সরাবো বিহারে ভোলাবো জ্বালা তোমারো বিহনে তিমিরো তিথিতে তাতিয়া উঠে মন তারারাও পস্তায় তোমারে জরাবো জরিনো চাদরে ভাসাব কবিতার তিস্তায় পরিরা স্বপনে হরিণো নয়নে পরাবে তোমারে কষ্টি কাজল হুরেরা গায়বে দুরেরো মহুয়ায় অমরত্তের গজল চন্দ্রকুটে চরয়া তোমারে চরনে চরাব হরি চন্দন চোলিকা চৌলি চাঁদকে আনিয়া …

চিরকুট- ৮৭

কৃষ্ণচূড়া লাল ঠোট; কপাল ঘামে নীল চন্দন; লজ্জাবতী লতার আড়ালে ডাগর নয়ন; ধুপছায়ায় ছেয়ে যায় অন্তিম স্মৃতিপট! — Art: Red Lips, Copic Markers, A5 by MahmurLemur

ইতিকথা

যেই তোরে দেখে দিতাম আবেগে ঝাঁপি , সেই তোকে দেখে কেন মন করে চিৎকার? ছায়াটুক দেখে দুজনেই উঠি কাঁপি, ভিতরে কেবলই নিস্তব্ধ, হাহাকার। বেলা শেষে যেথা সব ছিল ‘আমাদের’ আজ কেন সেথা যুদ্ধের ময়দান। যে আমাদের তকমা ‘অবিচ্ছেদ্দ্য’ ছিল, সেই গল্পের টানছি আজ অবসান। মনে পরে সেই ছোট্ট বেলার কথা? বয়স ছিল ছয় কিংবা সাত। …

জানোয়ার

আমি দাড়াইয়া ছিলাম বিছনার পাশে, জানালায় মাকড়সার জাল গুলা যেন ক্যানভাস, মরা মশার ছবি আঁকা। আমি দাঁড়াইয়া ছিলাম তোমার পাশে, হাতে মালা লইয়া! অনেক সময় গেলো, একদিন, দুইদিন- ৭৮ ঘন্টা হয়তো আরও বেশি সময়! এমন করিয়া ফুল গুলা শুকাই গেলো। বিছনায় কুকুরেরা ঘর করিল। দাঁড়াইয়া ছিলাম তোমার বিছনার পাশে- আর হাতের ফুল গুলা শুকাইয়া গেলো …