ফেরা (Return)

By Forugh Farrokhzad

On the wall once again the old ivy
rose in waves like a quivering spring,
on the body of its throng of leaves
an old green and the dust of time.

my searching look asked:
where is there a trace of him?
but I saw that my little room
was empty of his childlike clamor..

I rested against the wall,
I said slowly: is that you, kami?
but I saw that nothing remained
of that bitter past but a name.

at last the line of the highway ended,
dusty I arrived from the road,
thirsty at the wellspring of the path of attack and regret.
my city was the grave of my desires.

(Translated by Raisul Nayon & Sadaat Mahmood)

আবারও একবার দেয়ালের উপরে বুড়িয়ে যাওয়া কার্পেট লতা
আন্দোলিত হয়ে উঠেছিল কম্পমান ঝর্নার আদলে,
লতার শরীরে ছিল পাতার কোলাহল,
একটা পুরনো সবুজ ও সময়ের ধুলো।

আমার তৃষ্ণার্ত দৃষ্টি প্রশ্ন করেছিল
কোথায় তার রেখে যাওয়া শেষ চিহ্ন?
অথচ আমার ছোট ঘরটা খালিই পড়ে ছিল
তার শিশুসুলভ কোলাহল হীনতায়

দেয়ালে হেলান দিয়ে,
ধীর শব্দে বলেছিলাম এটা কি তুমি, আকাঙ্খা?
কিন্ত সেখানে তেতো অতীতের কিছুই অবশিষ্ট ছিল না
শুধু একটা নাম।

সবশেষে রাজপথের রেখা মুছে গিয়েছিল,
ধুলোমাখা হয়ে আমি পথ থেকে ফিরেছিলাম,
অনুশোচনা ও আঘাতের উৎসের কাছে তৃষ্ণার্ত।
আমার শহরটা ছিল আমার আশা-আকাঙ্খার গোরস্থান।

Original Writer Name:
Forugh Farrokhzad

(Visited 8 times, 1 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *